সর্বশেষ সংবাদ

বরগুনায় যাত্রীবাহী ট্রলারডুবি, ৭ লাশ উদ্ধার

বরগুনা প্রতিনিধিঃমাহফিল শুনতে বরগুনার বামনা উপজেলার চলাভাঙ্গা আসার পথে যাত্রীবাহী ট্রলার ডুবির ঘটনায় শুক্রবার রাত  দশটা পর্যন্ত আরও দুইটি লাশ পাওয়া গেছে। এ নিয়ে মোট লাশের সংখ্যা দাঁড়াল সাতে। এছাড়া আরো নিখোঁজ রয়েছেন একজন।

ট্রলার ডুবিতে নিহতরা হচ্ছেন- পটুয়াখালীর কলাপাড়া উপজেলার কুয়াকাটার ঝাউবন এলাকার জয়নাল আবেদীন (৬০), লক্ষ্মীপুরার ছয়জদ্দিন চৌকিদার (৫৫), মহিপুরের আবদুস সত্তার (৪২), ইউসুফ মাঝি (৪৫), আবু নাঈম (১৩), আলী হোসের (৩৫) ও হারুন মুন্সি (৩৭)। নিখোঁজ রয়েছেন আরো একজন।

স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান দুলাল ফরাজী জানান, কমপক্ষে ২০০ যাত্রী নিয়ে ট্রলারটি কুয়াকাটা থেকে যাত্রা শুরু করে। বরগুনার চলাভাঙ্গায় মাহফিলে যোগ দেওয়ার জন্য ওই যাত্রীরা ট্রলারটিতে উঠেছিলেন। পথিমধ্যে তালতলী উপজেলার
নিশানবাড়িয়া ইউনিয়নের তেতুলবাড়িয়া নামক স্থানে বঙ্গোপসাগরের মোহনায় ইঞ্জিন বন্ধ হয়ে যাত্রীদের হুরোহুরিতে বেলা বারোটার দিকে ট্রলারটি ডুবে যায়।

তালতলী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) বাবুল আকতার এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। ট্রলার ডুবিতে উদ্ধার হওয়া যাত্রী আলীপুর বাজারের মৎস্য ব্যবসায়ী চান মিয়া জানান, কুয়াকাটা থেকে বরগুনার বামনা উপজেলায় চলাভাঙ্গা দরবার শরীফে মাহফিলে আসতে দুই শতাধিক যাত্রী নিয়ে ট্রলারটি রওনা হয়েছিলো। তালতলী উপজেলার নিশানবাড়ীয়া
ইউনিয়নের তেতুলবাড়ীয়া নামক স্থানে আসার পরে হঠাৎ করে ট্রলারটির ইঞ্জিন বন্ধ হয়ে যায়। এসময় যাত্রীরা হুরোহুরি শুরু করে দেয়। ধারণ ক্ষমতার অধিক যাত্রী থাকায় এবং হুরোহুরিতে ট্রলারটি ডুবে যায়। কিছু যাত্রী সাঁতরিয়ে কিনারে উঠতে পারলেও তীব্র স্রোতের কারণে অনেকে হাবুডুবু খাচ্ছিলেন।

নিশানবাড়ীয়া ইউপি চেয়ারম্যান ও মৎস্য ব্যবসায়ী দুলাল ফরাজী জানান, অনেক যাত্রীকে তারা মাছ ধরা ট্রলার নিয়ে উদ্ধার করেছেন। তিনি আরো জানান, যাত্রীদের দেয়া তথ্য মতে এখন পর্যন্ত একজন যাত্রী নিখোঁজ রয়েছে। বিকেল সোয়া পাঁচটার দিকে ট্রলারটি উদ্ধার করে তীরে আনা হয়েছে।

ট্রলার ডুবির এ ঘটনায় গভীর শোক ও সমবেদনা প্রকাশ করেছেন চলাভাঙ্গা দরবার শরীফের পীর আলহাজ্ব মাওলানা সৈয়দ মুহা. সায়াদ হোসেন।

বরগুনা জেলা প্রশাসক মীর জহুরুল ইসলাম, পুলিশ সুপার মো. সাইফুল ইসলাম, তালতলী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা কাজী তোফায়েল হোসেন ও তালতলীর ওসি বাবুল আকতারের নেতৃত্বে বাকী লাশ উদ্ধারে অভিযান চলছে।

উল্লেখ্য, বরগুনার বামনা উপজেলার চলাভাঙ্গা দরবার শরীফে শুক্রবার থেকে  তিন দিনব্যাপী মাহফিলের আয়োজন করা হয়েছে। সেই মাহফিলে যাবার পথেই এ দুর্ঘটনা ঘটেছে।

Leave a Reply