সর্বশেষ সংবাদ
শিশুকে নিয়মিত খাবার খাওয়ানোর কৌশল

শিশুকে নিয়মিত খাবার খাওয়ানোর কৌশল

বেশির ভাগ মায়েদেরই অভিযোগ থাকে, তার শিশুটি খেতে চাচ্ছে না। শিশুর প্রয়োজনীয় খাবারগুলো মুখে তুলে দিতে প্রয়োজন একটু কৌশল অবলম্বনের। শিশুকে সব সময় নিয়ম বা সময়সূচি অনুযায়ী খাওয়াতে অভ্যাস করে তুলুন। শিশু খেতে চাইছে না বা খাচ্ছে না এ অজুহাতে তাকে ঘণ্টায় ঘণ্টায় খাবার দেবেন না। শিশু খেতে না চাইলে প্রয়োজনবোধে চিকিৎসকের সঙ্গে কথা বলুন। যখন-তখন খাবার দিয়ে তার খিদে নষ্ট করবেন না। খাবার হজম হলেই শিশুর খিদে লাগবে। আপনি যদি খাওয়ার সুনির্দিষ্ট সময় ছাড়া অন্য সময়ে শিশুকে কিছু খাওয়ান, তবে ক্ষতি হবে। শিশুর সুষম খাদ্য নিশ্চিত করতে যে বিষয়গুলোর প্রতি লক্ষ্য রাখবেন-

১. প্রথমেই বয়স অনুযায়ী শিশুর কী পরিমাণ সুষম খাদ্য প্রয়োজন, তা মাকে জানতে হবে।

২. খাওয়া নিয়ে জোর করবেন না। একবার জোর করে খাওয়ালে পরে যখনই তাকে খাওয়াতে চাইবেন তখনই সে ভয় পাবে। ফলে সে আরও কম খাবে। খাওয়ার প্রতি তার কোনো উৎসাহ থাকবে না।

৩. সব ধরনের খাবার খাওয়ানোর অভ্যাস করুন। শুধু মুরগির মাংস, গরুর মাংস বা ডিম দিয়েই ভাত খাবে, এমন অভ্যাস করাবেন না। খাবারে ভেরিয়েশন আনুন।

৪. খাবার পরিবেশনে একটু ভিন্নতা আনতে পারেন।

৫. খিদে বাড়ানোর জন্য তাদের খেলতে দিন।

৬. শিশুকে খাবার শেষ করার জন্য প্রাইজ দিন। এতে সে উৎসাহিত হবে।

৭. ২-৩ বছর বয়স থেকেই শিশুকে নিজ হাতে খেতে দিন।

৮. শিশুকে ঘরে তৈরি খাবারের সঙ্গে অভ্যস্ত করুন। শিশুর পছন্দ-অপছন্দের দিকে লক্ষ্য রাখুন। এ ক্ষেত্রে অবশ্যই পুষ্টিগুণসম্পন্ন খাবারের ব্যাপারে প্রাধান্য দিতে হবে।

৯. শিশুকে একনাগাড়ে বেশি খাওয়াবেন না। এক সঙ্গে বেশি খেলে বমি করে দিতে পারে কিংবা খাবারে অরুচি হতে পারে। অল্প অল্প করে ঘন ঘন খাওয়াতে চেষ্টা করুন।

১০. বাজার করার সময় যদি সম্ভব হয় আপনার শিশুকে নিয়ে যান। নানা ধরনের শাক-সবজি, ফলমূল, মাছ চেনাতে থাকুন এভাবে।

Leave a Reply