সর্বশেষ সংবাদ
প্রতিক্ষিত নগর আ’লীগ কমিটি ও বিশিষ্ঠ জনদের প্রত্যাশা

প্রতিক্ষিত নগর আ’লীগ কমিটি ও বিশিষ্ঠ জনদের প্রত্যাশা

সকল জল্পনা কল্পনা অবশান ঘটিয়ে অবশেষে বহুল প্রতিক্ষিত বরিশাল মহানগর আওয়ামীলীগের কমিটি ঘোষণা করেছে কেন্দ্রীয় আওয়ামীলীগ । প্রবীন নবীণ সমন্বয় করে একটি ভারসম্যপূর্ণ কমিটি নগর বাসীকে উপহার দিলেন দলীয় সভানেত্রী শেখ হাসিনা । এই কমিটি আগামী দিনে নগর আওয়ামীলীকে নেতৃত্ব দিয়ে দলকে পৌছে দেবে একটি শক্ত অবস্থানে আগামী দিনের অন্দোলন সংগ্রামে রাখবে ভূলিকা । সকল প্রকার বিভেদ ও গ্র“পিং নিরসান করে এই নবগঠিত কমিটির নেতৃবৃন্দ বাংলাদেশের রোল মডেল কমিটিতে রুপান্তর করবে বরিশাল মহানগর আওয়ামীলীগের নতুন  কমিটি কে । নতুন কমিটির কাছে এমটাই প্রত্যাশা নগরীর বিশষ্টজনদের । তবে সাধারন নগরবাসী বোঝেনা রাজনৈতিক মারপ্যাট কিন্তু রাজনৈতিক নেতৃবৃন্দের কাছে বরাবরই সাধারন মানুষের প্রত্যাশা থাকে অপ্রতুল । তবে প্রত্যাশা আর প্রাপ্তি মধ্যে কতটুকু ঘরতি থাকবে তার প্রমান সাধারন মানুষ দেবে তাদের ভোটঅধিকারের মাধ্যমে । আর এই কমিটিকে সে দিকেই লক্ষ রাখতে হবে বলে মন্তব্য সাধারন মানুষের । দলকে শাক্তি শালী করার পাশাপাশি দলের ভোট ব্যাংক বাড়ানোও হবে এই কমিটির অন্যতম প্রধান কাজ । এ বিষয়েটিও জোড় গলায় বলছে নাগরীকরা । বিএনটির দূগূ ক্ষত বরিশালে আওয়ামীলীগের ভোট ব্যাংক করানোর চ্যালেঞ্জে বাস্তবায়ন করতে পারলে এই কমিটি রোল মডেল হবে বলে ধারনা ক্ষোদ রাজনৈতিক বিশেষসকদের। তাই এই কমিটির কাছে নগরবাসীর প্রত্যাশার ঝুলি অনেক ভারী । এ ব্যাপারে কথা হয় রাজনৈতিক সামাজিক সাংস্কৃতিক অঙ্গনে অনেকের সাথে। তারা বশিাল প্রতিদিনকে বলেন।

তালুকদার মোঃ ইউনুস এমপিঃ জেলা আওয়ামীলীগের  সাধারন সম্পাদক নবগঠিত এই কমিটিকে স্বাগত জানিয়েছে বলেন , এই কমিটি সভাপতি ও সাধারন সম্পাদক দুজনেরই দীর্ঘ ছাত্র রাজনৈতির ইতিহাস রয়েছে। আন্দোলন সংগ্রামে থেকেছে রাজপথে । তাদের সমন্বয় এই কমিটি দলকে শাক্তি শালী করতে পারবে । আর এই কমিটির মাধ্যমে দীর্ঘদিন ধরে জেলা ও মহানগর আওয়ামীলীগের রাজনীতিতে যে বৈরিতা ছিল তা নিরসন হবে। বরিশাল বিভাগের হেড কোয়ার্টাস হচ্ছে বরিশাল মহানগর । তাই মহানগরের সাথে ঐক্য না থাকলে দলকে শক্তিশালী করা সম্ভবনা। তাই এই কমিটির সাথে ঐক্যবদ্ধ থেকে সকল আন্দোল সংগ্রাম সফল করে নির্বাচন সহ  সকল কর্মকান্ডে কামিয়াব হবে বরিশাল আওয়ামীলীগ। একই সাথে বাস্তবায়ন হবে জননেত্রী শেখ হাসিনার ডিজিটাল বাংলাদেশ ।

এস এম ইকবালঃবরিশাল সাংস্কৃতিক সংগঠন সমন্বয় বরিষদের সভাপতি সংস্কৃতিজন এস এম ইকবাল বলেন, নগর কমিটি এক কথায় ভাল হয়েছে। সভাপতি সম্পাদক দুজনেই বিগ্য আইনগ্য । আমি প্রত্যাশা কারি তারা রাজনিতিতে যে বিশৃংঙ্গল আছে তা দূর করতে পারবে। একই সাথে সহঅবস্থানের রাজনীতির পরিবেশ করতে পারবে। কারন তাদের সে মনভাব রয়েছে।

পুলক চ্যাটার্জিঃআব্দুর বর সেরনিয়াবাত বরিশাল প্রেস ক্লাবের সাধারন সম্পাদক পুলক চ্যাটার্জি তার  অনুভুতি প্রকাশে বলেন, এ কমিটির কাছে প্রত্যাশা অনেক । প্রবীন নবীন সমন্বয় কমিটি গঠন হয়েছে। অভিগ্য পুরনো রাজনৈতিকদের স্থান দেয়া হয়েছে এই কমিটিতে । তাই প্রত্যাশার ঝুলিটাও একটু ভাড়ি তাদের কাছে। সচেতন নগরবাসী মনে করেন বর্তমান সরকারের নিরাপত্তা কার্যক্রম এবং জনকল্যাণ মুখি কর্মকান্ড এই কমিটির মাধ্যমে নগরবাসীর কাছে  আরো বেশি প্রচারিত হবে। নগরীকরা তাদের প্রত্যাশিত উন্নয়ন ও সেবা পাবেন। পাশাপাশী সদ্য কমিটি সন্ত্রাস, মাদক ব্যবসায়ী , টেন্ডারবাজ ও উন্নয়ন বরাদ্দ লুটপাট কারীদের প্রতিরোধে দৃশ্যমান ভুমিকা রাখতে পারলে এ অঞ্চলে ভোট বারবে আওয়অমীলীগের। যার প্রমান নগরবাসী দেবে নির্বাচনে।

কাজী মফিজুল ইসলামঃবরিশাল জেলা আওয়ামীলীগের ত্রানও সমাজ কল্যাণ বিষয়ক সম্পাদক কাজী মফিজুল ইসলাম বলেন, আমাদের নেত্রী প্রধান মন্ত্রী শেখ হাসিনা যোগ্য ব্যাক্তিদের নির্বাচীত করে কমিটি ঘোষনা করেছে । আমার একই সাথে কাজ করে তার হাতকে শক্তিশালী করবো। আর এ প্রত্যাশা পুরন করবে নবগঠিত মহানগর কমিটি এমনটাই আশাপ্রকাশ করেন তিনি।

সৈয়দ দুলালঃ  বাংলাদেশ  গ্রূপ থিয়েটার ফোডারেশনের সভাপতি মন্ডলি সদস্য ও জেলা আওয়ামীলীগের সাংস্কৃতিক সম্পাদক সৈয়দ দুলাল বলেন, সুন্দর ও সচ্ছ একটি কমিটি গঠন করা হয়েছে । এক কমিটি রাজনীতির পাশাপাশী সাংস্কৃতিক বন্ধন হয়েও কাজ করবেন বলে আশা প্রকাশ করেন।

Leave a Reply