» নিবন্ধন থাকার যোগ্যতা বিএনপির নেই: কাদের

Published: ১২. অক্টো. ২০১৮ | শুক্রবার

সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, ২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলা মামলার রায় প্রকাশের পর বিএনপি এখন একটি সন্ত্রাসী দল। আন্তর্জাতিকভাবেও কানাডার আদালত বিএনপিকে সন্ত্রাসী দল হিসেবে স্বীকৃতি দিয়েছে। তিনি বলেন, নির্বাচন কমিশনে নিবন্ধন থাকার যোগ্যতা বিএনপির নেই।

আজ শুক্রবার বেলা সাড়ে ১১টার দিকে পদ্মা সেতুর মাদারীপুর ও শরীয়তপুর অংশে জনসভাস্থলের প্রস্তুতি পরিদর্শনে এসে ওবায়দুল কাদের এ কথা বলেন। রোববার প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার পদ্মা সেতুর নির্মাণকাজের অগ্রগতি পরিদর্শন ও চারটি প্রকল্প উদ্বোধন করার কথা।

ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘বিএনপি নির্বাচনে আসবে কি আসবে না, তা কি কাউকে বলে দিয়েছে? তারা তো সকালে একটা বলে, দুপুরে একটা বলে, সন্ধ্যার সময় আরেকটা বলে। বিএনপিকে কি আমরা দাওয়াত করে নির্বাচনে আনব? কোনো সরকার কি কোনো দলকে দাওয়াত করে নির্বাচনে আনে? নির্বাচনে আসা দলের অধিকার। তারা তাদের অধিকার প্রয়োগ করবে। কোনো দেশেই বিরোধী দলকে ডেকে ডেকে নির্বাচনে আনে না। গতবার তারা নির্বাচনে না গিয়ে ভুল করেছে। তার মাশুল তারা দিচ্ছে। এবার নির্বাচনে বিএনপি আসবে কি না, তা তাদের ব্যাপার।’

মন্ত্রী বলেন, ‘বিএনপি আন্তর্জাতিকভাবে কানাডার আদালতে সন্ত্রাসী হিসেবে স্বীকৃত। তারা নির্বাচনে আসবে কি আসবে না, তা নিয়ে আমাদের মাথাব্যথা নেই। তাদের নিবন্ধন থাকা অবস্থায় নির্বাচনে আসতে পারে। কিন্তু এই দলটির নির্বাচন কমিশনে নিবন্ধন থাকার যোগ্যতাও নেই। তারা গ্রহণযোগ্যতা হারিয়ে ফেলেছে।’

কাদের বলেন, ‘বাংলাদেশের জনগণ বিএনপির মতো সন্ত্রাসী দলেকে আস্থায় নেবে, তা আমরা বিশ্বাস করি না। কাজেই তাদের নিয়ে আমাদের কোনো চিন্তাভাবনা বা মাথাব্যথা থাকার কারণ নেই।’

২১ আগস্টের গ্রেনেড হামলা মামলার রায় নিয়ে কাদের বলেন, ‘গ্রেনেড হামলার মূল পরিকল্পনাকারী হচ্ছে বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমান। আমরা উচ্চ আদালতে তারেক রহমানে ফাঁসি দাবি করব। আমরা অলরেডি সেই দাবি করেছি। তা ছাড়া খালেদা জিয়াও স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী হিসেবে, প্রধানমন্ত্রী হিসেবে দায়দায়িত্ব এড়াতে পারেন না। ২১ আগস্টের গ্রেনেড হামলায় তাঁরও বিচার হওয়া উচিত।’

প্রধানমন্ত্রীর কর্মসূচির বিষয় নিয়ে ওয়াবদুল কাদের বলেন, ‘পদ্মা সেতুর কাজের অগ্রগতি পরিদর্শন ও চারটি প্রকল্প উদ্বোধন করতে প্রধানমন্ত্রীর আগামীকাল শনিবার শরীয়তপুর-মাদারীপুরে আসার কথা ছিল। বৈরী আবহাওয়ার কারণে ওই কর্মসূচি এক দিন পিছিয়েছে।’